অনুসন্ধান করুন

ইন্ডিয়ান ভিসার ডেট ও সময় সূচি


আজকের তারিখ এবং সময় তারিখ রিলিজ সময়:

 See Time click here 

 Give Your area news ! Write news and sent it 
gsbteams@gmail.com
and you may become  a admin of googlesb site.



--অনেকটা সময় ধরে বসিয়ে রাখার জন্য সরি । --না ,না । আমিও এখনই এসেছি । এখানটাতে বসো.....

কিছু কথা অব্যক্তই থাকে
BY : @VumiHin Jomidar (Mustak)

--অনেকটা সময় ধরে বসিয়ে রাখার জন্য সরি ।
--না ,না । আমিও এখনই এসেছি । এখানটাতে বসো ।

হাত দিয়ে পাশের ঘাসে ভরা জায়গাটা দেখিয়ে দিতেই চুপচাপ বসে পড়ল মেয়েটি । কিছুক্ষন নিশ্চুপ হয়ে নিরাবতার গান শুনতে লাগল দুজনে । কথাটা কে আগে শুরু করবে তা নিয়ে দুজনের মাঝেই কিছুটা ভাবনা চলছে ।

--আপনার শরীরটা এখন কেমন ?
--আমি অসুস্থ তুমি বুঝলে কিভাবে ?
--আপনি আমার বাসার সামনে গত দুদিন আসেন নাই । অথচ গত দুমাসে একটা দিনও আপনি ফাকি দেন নাই ।
--ঠান্ডাটা একটু বেশিই লেগেছে । আমি তোমার বাসার সামনে থাকি ,তুমি খেয়াল করো !
--গত দুমাসে আপনার জন্য জানালার দিকে খেয়াল রাখতে রাখতে জানালা থেকে কি কি দেখা যায় সব কিছু মুখস্ত হয়ে গেছে ।
--না আসলে ওখানে আমার একটা কাজ.....
--থাক হয়েছে । ঠান্ডার মাঝে শীতের কাপড় না পড়ে এসেছেন যে !
--শীতটা আজ একটু কম হবে ভেবেছিলাম ।
--আপনি সব সময়ই কমই হবে ভাবেন । বাসার সামনেও আপনাকে শীতের কাপড় ছাড়াই দেখি সবসময় ।
--আমার আসলে শীতটা একটু কম ।
--থাক হয়েছে আর বলে হবে না । আপনার হাতটা একটু দেবেন ?
--ক্যানো ?
--জর কতটা দেখব । এদিকে হাত দেন ।

চুপ চাপ শান্ত সুবোধ ছেলের মত হাতটা বাড়িয়ে দিতেই কিছুটা উষ্ণতা খুজে পেলো মেয়েটির ছোয়ায় । হাতটা ধরেই বসে রইল মেয়েটি ,হয়ত কিছুটা জ্বর যদি ভাগা ভাগী করা সম্ভব হত তবে তাই করত । সামনের পুকুর পাড়ে একজোড়া হাস একসাথে ভেসে চলেছে । দুজনেই খুব মনোযোগ দিয়ে পানিতে দুলতে থাকা হাসের জোড়াটার দিকে একনজরে তাকিয়ে আছে । কারো মুখে কোনো কথা নেই । সামনে ভাসতে থাকা প্রাকৃতিক ভালোবাসার প্রতিকী সুখ হয়ত দুজনের মনকেই দোলা দিয়ে চলেছে ।
--আমার চাদরটা নেন । গায়ে জড়িয়ে বসুন ,তা নাহলে আপনার জরটা বেড়ে যাবে ।
--না । আমি ঠিক আছি ।
--কোন কথা নয় । বলছি নিতে হবে ।

চাদরটা গায়ের উপর আস্তে করে মেলে দিয়ে আবারও পাশে বসে পড়ল কিন্তু ফিরে এসে হাতটা ধরতে ভূল হলোনা একটুও ।

--তোমার তো ঠান্ডা লাগবে ।
--একটুতে আমার কিছু হবে না । চলেন একটু হাটি ।
--চলো ।

হাতে হাত রেখে দুজনা পুকুরপাড়ে হাটতে শুরু করল আর হাসের ভাসন্ত প্রেমকে খুজতে লাগল । দুজনে দুজনকে বুঝতে পারছে এটাও কি ভালোবাসা নাহ ! প্রোপোজ টা না হয় বুড়ো বয়সের জন্য তোলা থাকল । চলছে যেভাবে এভাবেই চলতে থাক অনন্তকাল । হাত ধরে পুকুরের হাস জোড়াকে ফলো করেই কাটুক না দিনগুলো ,ক্ষতি কি !

আপনি কি জানেন দুনিয়ার সবথেকে দামী কম্পিউটার কোনগুলো ? দেখে নেন

আমি বা আপনি অনেকেই কিন্তু জানি না বর্তমান পৃথিবীর সবথেকে মুল্যবান কম্পিউটার কোনগুলো। আসেন আজ জেনে নেই।

1. Decadent Display

most expensive computer decadent display
বিশাল ! কি বলেন । হ্যা, এটি বর্তমান জমানার সবথেকে দামী কম্পিউটার। ডেক্সটপ বলবো নাকি ? না থাক। মোট ১৫ টি স্ক্রিন ব্যাবহার করে তৈরী করা জন্ত্রটার ক্ষমতা বারিয়ে নিয়ে ৩০ টি ডিসপ্লে ও অর্ডার করতে পারেন। আর এজন্য আপনাকে শুরুতেই খরচ করতে হবে ৮০ লক্ষ ডলার !!!!! কনফিগারেশন সম্পর্কে আমার কোন ধারনা নাই, দাম শুনে মাথা হ্যাং হয়ে গেছে।

2. Tulip E-Go

most expensive computer tulip ego laptop
টিউলিপ ইগো নামের নোটবুক টিতে ব্যাবহার করা হয়েছে ৮০ ক্যারেটের হোয়াইট গোল্ড যা কোন সম্ভ্রান্ত নারী অলংকার হিসেবে ব্যাবহার করতে পারলে বর্তে যাবেন। এর ভ্যালূ আরো বাড়িয়ে দিয়েছে ব্যাবহৃত সেরা মানের হীরে গুলো।
সাদা সোনা, হীরা এর দাম তো একটু বেশী হবেই। জী ৩৫৫,০০০ মার্কিন ডলার।

3. Truvia EPC

most expensive computer truvia epc1
আমরা বাংলাদেশী রা হস্তশিল্পের দাম না দিলেও বাইরের দেশ গুলোতে এর কিন্তু অনেক দাম। বোঝা যায় ট্রুভিয়া ই পিসি নামের ডেক্সটপ কে দেখলে। জী, কিছু সুক্ষ পার্টস ছারা প্রায় সম্পুর্ন টাই হাতে তৈরী।  দাম আগের গুলো থেকে অবশ্য কম।  ৫৫,০০০ মার্কিন ডলার। মানে ৪৪,০০০০০ টাকা মাত্র।

4. Apple G52

most expensive computer apple g5
১৬ গিগাবাইট র‌্যাম আর এক টেরা বাইট হার্ডডিস্ক এর দাম কেন এত তা আমার বোধগম্য হয়নি। তবু ক্ল্যাসিক আর ব্র্যান্ড বলে কথা। জী,টেক জায়ান্ট এ্যাপল এর তৈরী করা জি ফাইভ মডেলের এই সেন্ট্রাল প্রসেসিং ইউনিট টির মুল্য ২৫,০০০ মার্কিন ডলার। ( বাবারে!!! ) অবশ্য এর বডি খুবি উচ্চমানের এ্যালুমিনিয়াম দিয়ে তৈরী।

5.Voodoo OMEN

most expensive computer voodoo omen
৪ গিগাবাইট র‌্যাম আর ২ টেরাবাইট হার্ডডিস্ক , ডুয়েল কোর প্রসেসর নিয়ে তৈরী হবা সুপার স্ট্যান্ডার্ড আউটলুকের এই পিসির দাম ধরা হয়েছিলো ২৪০০০ ডলার।
( আমি এগুলো দেখে অনেক টাই অবাক। এত দাম দিয়েও কেউ কেনে এগুলো ? অবশ্য ভাই , যার যেমন সামর্থ্য তার তেমন ইচ্ছে। এ কারনেই হয়তো বসুন্ধরা সিটির ২ হাজার টাকা দামের গেঞ্জি আজিজ মার্কেটে ২০০ টাকায় পাওয়া যায়, দয়া করে কেউ গুনগত মান কি কোয়ালিটি ব্র্যাণ্ড নিয়া প্রশ্ন তুলবেন না । আমার জন্য ভালো জিনিষ ই ভালো। দেখতে সুন্দর কি দামী ব্র্যান্ড দেখতে দেখতে আজ আমাদের অবস্থা অতি করুন। }

ফ্রি ফলাফল তৈরীর সফটওয়্যার (জিপিএ,গ্রেড, সিরিয়াল সহ)

সম্পূর্ণ শিক্ষা বোর্ডের নিয়মানুযায়ী জিপিএ, গ্রেড এবং সিরিয়ালের ভিত্তিতে কম সময়ে নির্ভূলভাবে পরীক্ষার ফলাফল তৈরীর জন্য এই সফটওয়্যারটি বিশেষভাবে তৈরী। সফটওয়্যারটিতে শুধুমাত্র নম্বর ইনপুট দেওয়া ছাড়া বাড়তি আর কোন কাজ করতে হয়না। বিষয় এবং প্রাপ্ত নম্বর এর ভিত্তিতে এটি বিভিন্ন রিপোর্ট প্রদান করে যা সহজে
প্রিন্ট আউট করা যায়।

প্রিন্ট আউট
  • শ্রেণী ভিত্তিক পূর্ণাঙ্গ ফলাফল ক্রমানুসারে প্রিন্ট আউট
  • শ্রেণী ভিত্তিক মেধা তালিকা প্রিন্ট আউট
  • শ্রেণী ভিত্তিক গ্রেড প্রিন্ট আউট
  • শ্রেণী ভিত্তিক এক, দুই, তিন বিষয়ে অকৃতকার্যদের প্রিন্ট আউট
  • নিদিষ্ট জিপিএ এর আলাদা প্রিন্ট আউট

কিছু দিনের Trial সফটওয়্যারকে কোন সিরিয়াল Key ছাড়াই আজীবনের জন্য ফ্রী করে নিন ;-) সাথে থাকছে Android বাংলা Dictionary।

আমরা অনেক সময়ই এমন কিছু সফটওয়্যার চালাই যা ৩০দিন বা এক সপ্তাহের জন্য Trial Version হিসেবে ব্যবহার করে থাকি। নির্ধারিত সময় শেষ হওয়ার পর হয় আমরা গুগল করে সিরিয়াল Key বের করার চেষ্টা করি অথবা সফটওয়্যারটি Uninstall করে আবার Install করি। কিন্তু কিছু কিছু ক্ষেত্রে এই পদ্ধতি দুইটার কোনটাই কাজ করে নাহ। আমি এখন আপনাদের সাথে একটা সহজ পদ্ধতি শেয়ার করব যার সাহায্যে আপনি নিজেই আপনার PC তে ব্যবহৃত সফটওয়্যারটি ফ্রী করে নিতে পারবেন।
আসলে যে Trial Version গুলো আমরা ব্যবহার করি তা আমাদের PCর Date এর হিসাব রেখে দিন Countdown করে। আমরা যদি উক্ত সফটওয়্যারটির Date Fixed করে দিতে পারি তাহলেই তো কাজ শেষ। ওই সফটওয়্যারটি আপনার আর Uninstall করতে হবে নাহ।
আর কথা না বাড়িয়ে ২এমবির সফটওয়্যারটি ডাউনলোড করে নিন।
Direct Link
সফটওয়্যারটি Install করে C:\Program Files (x86)\Cracklock\Bin থেকে ওপেন করুন
First, Open Cracklock
First, Open Cracklock
Click on Add Program
Click on Add Program
check as shown below
check as shown below
Go To Injection Mode & make a shortcut on Desktop
Go To Injection Mode & make a shortcut on homepage
এখন আপনার ডেস্কটপে ওই app এর Shortcut Create হয়েছে
এখন আপনার ডেস্কটপে ওই app এর Shortcut Create হয়েছে
ok দিয়ে বের হয়ে আসুন। ব্যাস, কাজ শেষ। এখন আপনি এই applicationটি ডেস্কটপ থেকে ওপেন করেন দেখবেন trial এর দিন fixed হয়ে গেছে। এখন আর চিন্তা নাই।
প্রমাণ দেখুন। আমার একটা application এর মেয়াদ Nov 26 তারিখে শেষ হয়ে যাওয়ার কথা। কিন্তু এখনো ৩০দিন Remaining দেখাচ্ছে।

তাহলে এখনেই ডাউনলোড করে নিন।সাথে Android Bangla Dictionary নিয়ে নিন। ডাউনলোড লিংক ।

এনড্রয়েড মোবাইলের কিছু গুরত্বপূর্ন কোড দেখে নিন এখান থেকে ।

ঝটপট  দেখে নিন এনড্রয়েড  এর  গুরত্বপূর্ন কোড গুলো::
(1) Shows Wi-Fi MAC address:
  •  Just Dial *#*#232338#*#*
(2) Bluetooth test:
  •  Just Dial*#*#232331#*#*
(3) Shows Bluetooth address:
  • Just Dial *#*#232337#*#
(4) LCD test:
  •  Just Dial*#*#0*#*#*
(5) Vibration & Back Light test:
  •  Just Dial *#*#0842#*#*
(6) Touch screen version:
  • Just Dial *#*#2663#*#*
(7) Touch screen test:
  •  Just Dial*#*#2664#*#*
(8) Proximity sensor test:
  • Just Dial *#*#0588#*#*
(9) RAM version:
  • Just Dial *#*#3264#*#*
(10) Android Phone GTalk lanuch:
  • Just Dial *#*#8255#*#*
(11) PDA, Phone, CSC, Build Time,Change list number:
  • Just Dial*#*#44336#*#*
(12) Android Phone Reset:
  •  JustDial *#*#7780#*#*
(13) Android Phone Backup:
  •  Just Dial *#*#273283*255* ­663282*#*#*
  •  This code opens a file copy screen where you can backup your media files
(14)Android Phone Information:
  • Just Dial *#*#4636#*#*
  • You can use this code to get some information about your phone and battery.
  • It shows phone information, Battery information, Battery history, & Usage statistics.
(15) Android Phone Service mode:
  • Just Dial *#*#197328640#* ­#*
  • You can use this code to enter into Service mode
  • You can run various tests and change settings in the service mode.
(16) Android Phone Camera Information:
  • Just Dial *#*#34971539#*#*
  • You can use this code to get information about the camera.
  • It shows following 4 menus.
  • Update camera firmware in image, Update camera firmware in SD card, Get camera firmware version and Get firmware update count.
  • WARNING: Never use the first option (Update camera firmware in image) otherwise your camera will stop working and you’ll need to take your phone to service center to reinstall camera firmware
(17) Android Phone Factory Format:
  •  Just Dial *2767*3855#
  • This code is used for factory format, which will delete all files and settings, including the internal memory storage. It’ll also re install the firmware.
  •  You can use this code to reset your Android phone back to factory data.
  •  It’ll remove following things: Google account settings stored in your phone, System and application data and settings, Downloaded applications.

পিসিতে এন্ড্রয়েড ইনস্টল ও ব্যবহার

পিসিতে এন্ড্রয়েড ইনস্টল একদম পানির মত সহজ এবং মাত্র কয়েক মিনিটের ব্যপারঃ যদি প্রয়োজনীয় উপকরন আমাদের নিকট থাকে। এর জন্য প্রথমে আমাদের এন্ড্রয়েডের অফিশিয়াল আইএসও ফাইল ডাউনলোড করে নিতে হবে। আমরা এন্ড্রয়েডের লেটেস্ট ভার্শন 4.4 KitKat ডাউনলোড করব। এজন্য প্রথমে এই লিঙ্ক এ যান এবং আইএসও ফাইলটি ডাউনলোড করুন। সাইজ, ৩৪৫ মেগাবাইট। ফাইলটি ডাউনলোড শেষে এবার তা ব্লাঙ্ক সিডিতে বার্ন করার পালা। আপনি যেকোন সফটওয়ার দিয়ে এটি বার্ন করতে পারেন। তবে সবচেয়ে ভালো হবে পাওয়ার আইএসও ব্যবহার করলে। আপনি এটির পোর্টেবল ভার্শন ডাউনলোড করতে পারেন এই লিঙ্ক  থেকে। এখানথেকে প্রাপ্ত জিপ ফাইলটি আনজিপ করুন এবং PowerISO ফোল্ডারটি ওপেন করুন। এরপর এখানথেকে PowerISO.exe ফাইলে ডাবল ক্লিক করে ওপেন করুন। নিচের মত স্ক্রিন আসবে।

এর Open ট্যাব থেকে ডাউনলোডকৃত এন্ড্রয়েড কিটক্যাটের আইএসও ফাইলটি ব্রাউজ করুন এবং বার্ন করুন। বার্ন শেষে। সিডিটি আপনার পিসির সিডি ড্রাইভে ঢুকান এবং পিসি রিস্টার্ট করে সিডি থেকে বুট করান। নিচের মত স্ক্রিন আসবে।

এখানে লক্ষ করুনঃ প্রথম অপশন Live CD – Run Android x86…. আপনি যদি ইনস্টল ছাড়াই এটি লাইভ চালাতে চান, তবে এই অপশন সিলেক্ট করুন। আর যদি ইনস্টল করতে চান তবে চতুর্থ অপশন অর্থাৎ Installation – Install Android x86…. সিলেক্ট করুন এবং পরবর্তী নির্দেশনা অনুযায়ী ইনস্ট্যালেশন শেষ করুন। ইনস্টল শেষে নিচের মত স্ক্রিন আসবে।
আবার দেখুন। এর এপ্লিকেশন মেন্যু।

এতে এন্ড্রয়েডের যাবতীয় এপ্লিকেশন ব্যবহার করতে পারবেন। কিন্তু মডেম বা ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট ব্যবহার করতে পারবেন না। তবে এন্ড্রয়েড মডেম চালাতে পারবেন বা ওয়াইফাই থেকে ইন্টারনেট চালাতে পারবেন। পেনড্রাইভ ব্যবহার করতে পারবেন। কিন্তু অপটিক্যাল ড্রাইভ চলবেনা। হার্ডডিস্কের রুট পার্টিশন ব্যতিত অন্য কোন ড্রাইভ ইউজ করতে পারবেন না। কিন্তু ইউএসবি হার্ডডিস্ক চলবে। সবমিলিয়ে এটা খারাপ লাগার কথা না। তো আর দেরী কেন? চলুন পিসিতে এন্ড্রয়েডের স্বাদ নেওয়া যাক।

যেভাবে তৈরি এবং সেয়ার করবেন ফেসবুকের ইয়ার ইন রিভিউ

সামাজিক যোগাযোগের জনপ্রিয় সাইটগুলোর মধ্যে ফেসবুকের অবস্থান শীর্ষে। এর সঙ্গে পাল্লা দিতে ইতিমধ্যে অবশ্য অনেকগুলো সাইট তৈরি হয়েছে। কিন্তু এর কোনোটিই ফেসবুকের ধারেকাছে নেই। দিনের কোন একটা ব্যাপার নেই যা আমরা ফেসবুকে সেয়ার করি না । টাই আমাদের মাথার চাইতেও আমাদের ফেসবুক প্রফাইল ভালো বলতে পারবে আমরা কবে কোথায় কেমন ছিলাম । ২০১৪ সালের শেষের দিকে যদি প্রশ্ন করা হয় কেমন ছিল আপনার এই বছর টা ? এমন প্রশ্নের উত্তর পেতে হলে ঘণ্টার পর ঘণ্টা সময় নিয়ে টাইম লাইন ঘাঁটতে হবে। কিন্তু এই কাজ আরও সহজ করে দিতে গত বছরের পুরনো ফিচার ‘ইয়ার ইন রিভিউ’কে নতুন ভাবে সাজিয়ে হাজির করেছে স্যোসাল মিডিয়া জায়ান্ট ফেইসবুক।
ব্যবহারকারীদের বছরের সেরা পোস্টগুলো তুলে ধরতে নতুন রূপে চালু হয়েছে ফেইসবুকের 'ইয়ার ইন রিভিউ'। এ সুবিধা কাজে লাগিয়ে ব্যবহারকারীরা ২০১৪ সালের প্রতিটি মাসের সেরা পোস্ট, ছবি ও মন্তব্য জানার সুযোগ পাবেন। চাইলে ফেইসবুক বন্ধুদের সঙ্গে বিনিময়ও করা যাবে।www.facebook.com/ yearinreview ঠিকানায় প্রবেশ করে এ সুবিধা মিলবে। গত বছর এ সুবিধা কাজে লাগিয়ে ভিডিও দেখার সুযোগ পেয়েছিলেন ব্যবহারকারীরা।
ফেসবুক তার ব্যবহারকারীদের এ বছরের গুরুত্বপূর্ণ বা সেরা সেই মুহূর্তগুলো ‘ইয়ার ইন রিভিউ’ নামের ছোট্ট একটি টুলের মাধ্যমে স্মরণ করিয়ে দিচ্ছে। প্রতিবছরই এ ফিচারটি উন্মুক্ত করে ফেসবুক। সম্প্রতি এ বছরের জন্যও এ ফিচারটির আপডেট সংস্করণ উন্মুক্ত করেছে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ। ফেসবুক স্বয়ংক্রিয়ভাবে এ বছরে আপনার যে ছবিগুলো সবচেয়ে বেশি ‘লাইক’ পেয়েছে, সেগুলো সাজিয়ে একটি ফটো কোলাজ তৈরি করে দিচ্ছে। এই ফটো কোলাজটির ওপরের দিকে ডানদিকের কোনায় থাকা কাস্টোমাইজ বাটন থেকে পছন্দমতো ছবি যুক্ত করা বা ছবি সরিয়ে ফেলার সুযোগও রয়েছে। এখান থেকেই ছয়টি থিমের মধ্যে পছন্দের থিমটি বেছে নেওয়া যাবে।
২০১৪ সালের এই ফটো অ্যালবাম তৈরির দুটি বিশেষ পদ্ধতি রয়েছে। প্রথম পদ্ধতিটি হচ্ছে সরাসরি (http://www.facebook.com/yearinreview) লিংকে গিয়ে এটি তৈরি করে নেওয়া এবং আরেকটি পদ্ধতি হচ্ছে বন্ধুর পোস্ট করা ইয়ার ইন রিভিউ কোলাজের নিচে থাকা ‘ভিউ নাউ’ থেকে নিজের জন্য কোলাজ তৈরি করে নেওয়া। ফেসবুক মোবাইল অ্যাপেও আপনি (https://www.facebook.com/mobile) একটি পপ-আপ দেখতে পাবেন। এখান থেকেও আপনি তৈরি করতে পারবেন আপনার ‘ইয়ার ইন রিভিউ’।

চুরি যাওয়া মোবাইল ফিরে পাবেন কিভাবে জেনে নিন! (এই পদ্ধতি গ্রহন করলে আপনার হারিয়ে যাওয়া মোবাইল টি ফিরে পেতে পারেন)

সবাইকে আমার সালাম জানাচ্ছি।
আশা করি আপনারা সবাই ভালো আছেন।
মোবাইল হারানো সমস্যা দীর্ঘদিনের।
বিশেষ করে রাজধানীর বাসে চলাচল করা একেবারেই নিরাপদ নয়।
এমন পরিস্থিতিতে মোবাইল হারালে সেটি ফিরে পাওয়ার জন্য রয়েছে একটি এ্যাপস্।
এই এ্যাপসটি কিভাবে ব্যবহার করতে হবে জেনে নিন।
মোবাইল হারানোর সমস্যা রয়েছে দীর্ঘদিনের।
রাস্তায় বেরুলেই এমন সমস্যা হতে পারে।
আর আপনার প্রিয় মোবাইলটি যদি এভাবে চুরি যায় তাহলে আপনি কি করবেন।
আমরা আগেও দেখেছি অনেক ধরনের এ্যাপস্ রয়েছে।
তবে এবারের এ্যাপসটি একটু ভিন্ন প্রকৃতির।
অনলাইনে এই ধরনের একটি এ্যাপস পাওয়া গেছে।
তবে এটি কতখানি কার্যকরি তা আমরাও জানিনা।
আজ আপনাদের শেখাব কিভাবে আপনার ফোন চুরি যাওয়া মোবাইল ফিরে পাবেন।
এবার আসুন বিষয়টি দেখে নেওয়া যাক।
প্রথমে গুগল প্লেস্টোর হতে এ্যাপসটি ডাউন লোড করতে নীচের লিংকে ক্লিক করুন
Apps Download Link
এখন ইনস্টল করুন।
এই এ্যাপসটি ইনস্টল করলে নীচের ছবির মতো দেখা যাবে।

Photo of a big bunny rabbit!

এখন আপনার পাসওয়ার্ড টাইপ করে Ok বাটন চাপুন।
তবে দুটি বক্সে একই পাসওয়ার্ড দিতে হবে।

Photo of a big bunny rabbit!

এখন আপনার দেওয়া পাসওয়ার্ড পুনরায় টাইপ করে Ok বাটন চাপুন।

Photo of a big bunny rabbit!

এবার নিচের ছবিটি লক্ষ্য করুন এবং Deactive এ ক্লিক করুন।

Photo of a big bunny rabbit!

প্রথম বক্সটিতে আপনার ফোন নাম্বার টাইপ করুন ও দ্বিতীয় বক্সটিতে আপনার নাম্বারে কি লিখে ম্যাসেজ আসবে তাই টাইপ করুন।
তারপর Save বাটন চাপুন।

Photo of a big bunny rabbit!

এখন পূনরায় Deactive এ ক্লিক করুন এবং Ok বাটন চাপুন।
(ডুয়েল সিম মোবাইলের ক্ষেত্রে কিছু সমস্যা দেখা দিতে পারে যেটি উপরের ছবি দেখে বুঝতে পারছেন)
এরপর দেখবেন Deactive এর জায়গায় Active লেখা এসেছে।

Photo of a big bunny rabbit!

এখন কেও যদি আপনার ফোন চুরি করে নিয়ে আপনার ফোন সেটে তার সীমটা লাগিয়ে ফোন করে তাহলে সঙ্গে সঙ্গে আপনার নাম্বারে তার নাম্বার হতে একটি এস এম এস আসবে।
এভাবেই আপনি সহজেই পেয়ে গেলেন সেই চোরের নাম্বার।
এখন ইচ্ছে করলে পুলিশের মাধ্যমে আপনি তার গতিবিধি বের করে তাকে ধরেও ফেলতে পারেন।
এভাবে চোর ধরা যেতে পারে।

নতুন দুটি স্মার্টফোন বাজারে আসছে


স্যামসাংয়ের গ্যালাক্সি এস৬-এর সম্ভাব্য নকশা

নতুন দুটি স্মার্টফোন বাজারে আসার খবরে প্রযুক্তি বিশ্ব আবার সরগরম। প্রযুক্তিবিষয়ক বিভিন্ন ওয়েবসাইটে ইতিমধ্যে এই দুটি নতুন ফোন নিয়ে ইতিমধ্যে শুরু হয়ে গেছে তোলপাড়। এর একটি হচ্ছে স্যামসাংয়ের আর অপরটি অ্যাপলের।
আগামী বছরে স্যামসাং তাদের গ্যালাক্সি সিরিজে যুক্ত করতে পারে এস৬ নামের নতুন স্মার্টফোন। অ্যানটুটু বেঞ্চমার্ক সাইটে ইতিমধ্যে এই ফোনটির সম্ভাব্য ফিচার সম্পর্কে তথ্য প্রকাশিত হয়েছে। গ্যালাক্সি এস৬ (এসএম-জি৯২৫এফ) নামের এই ফোনটি সম্পর্কে ফোন এরেনা লিখেছে, ফোনটি চলবে অ্যান্ড্রয়েড ললিপপ অপারেটিং সিস্টেমে। এতে থাকবে ৬৪ বিটের অক্টা কোর এক্সিনোস ৭৪২০ প্রসেসর, মালি-টি৭৬০ জিপিইউ, তিন জিবি র‌্যাম,সাড়ে ৫ ইঞ্চি মাপের কিউএইচডি (১৪৪০ বাই ২৫৬০ পিক্সেল) রেজুলেশন প্যানেলের স্মার্টফোনটির পেছনে ২০ ও সামনে ৫ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরার পাশাপাশি এতে ৩২ গিগাবাইট স্টোরেজ বিল্ট ইন থাকবে।
গ্যালাক্সি এস৬ স্মার্টফোনটির বেশ কয়েকটি সংস্করণ তৈরি করতে পারে স্যামসাং যার মধ্যে একটি হতে পারে গ্যালাক্সি নোট এজের মতো বাঁকানো ডিসপ্লেযুক্ত। নতুন স্মার্টফোনটি তৈরির জন্য ‘প্রজেক্ট জিরো’ নামের একটি প্রকল্প নিয়ে কাজ করছে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রতিষ্ঠানটি।
আইফোন ৫সির বদলে বাজারে আসতে পারে নতুন সংস্করণের আইফোন ৬আইফোন ৫সির বদলে বাজারে আসতে পারে নতুন সংস্করণের আইফোন ৬এদিকে, আইফোন বাজারে আসার কয়েক মাসের মধ্যেই আবার নতুন আইফোন নিয়ে শুরু হয়েছে গুঞ্জন। এক খবরে টেলিগ্রাফ জানিয়েছে, ৪ ইঞ্চি মাপের নতুন সংস্করণের আইফোন ৬ তৈরি শুরু করেছে অ্যাপল। অ্যাপলের আইফোন ৫সির জায়গা নেবে এই ফোনটি। আইফোন৫সি আর বাজারে আনবে না প্রতিষ্ঠানটি। এ বছরের সেপ্টেম্বর মাসে ৪.৭ ইঞ্চি মাপের আইফোন৬ ও সাড়ে ৫ ইঞ্চি মাপের আইফোন ৬ প্লাস বাজারে এনেছে অ্যাপল। বাজার বিশ্লেষকেরা বলছেন, ৪ ইঞ্চি মাপের নতুন ফোন এনে আবারও ছোট মাপের ফোনের বাজারে ফিরতে চায় অ্যাপল।
আগামী বছরের সেপ্টেম্বর মাসের আগেই এই ফোনটি বাজারে ছাড়তে পারে অ্যাপল। অবশ্য তার আগেই অ্যাপলের স্মার্টওয়াচ বাজারে আসতে পারে।